কিন্তু আব্বু যখন আগে দেশে আসতেন তখন শুধু ভাবতাম, আব্বু এমন কেন! খালি বকা দেন কেন! রোদে খেলতে দেন না কেন! তাই ভাবতাম আব্বু কবে বিদেশ যাবেন। যেদিন আব্বুর ফ্লাইট থাকত তখন আব্বু আমাকে জড়িয়ে ধরে হাউমাউ করে কাঁদতেন আর বলতেন ‘বাবা, নিজের খেয়াল রাখিস।’ তখনই শুধু বুঝতাম, না, আব্বু আমাকে ভালোবাসেন।

২০০৭ সালের কথা, আমার এসএসসি পরীক্ষার ফল প্রকাশ হয়েছে। ফল খুব ভালো। বন্ধুরা পিকনিকে যাবে, সঙ্গে আমিও যাব ঠিক করলাম কিন্তু আব্বু দেশে ছিলেন এবং আমাকে যেতে নিষেধ করে দিলেন। আমি খুবই অভিমান করলাম। সেদিন রাতেই আব্বু আমাকে মানানোর জন্য ২০০ টাকা দিয়ে বললেন, তোমার কিছু খেতে ইচ্ছা করলে খেয়ে নিয়ো। আমি ভাবলাম, যে মানুষটা আমার জন্য এত করেন, তিনি তো কখনো আমাকে কষ্ট দিতে চাইবেন না। এই ভেবে মনটা ভালো হয়ে গেল। আমি জানি, কৈশোরে সবার সঙ্গেই এমন হয় কিন্তু আব্বুকে কখনো একটি কথা বলতে পারি না। তা হলো ‘তোমাকে অনেক ভালোবাসি, আব্বু।’

গল্প থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন